সোমবার, ২১ জুন ,২০২১

Bangla Version
  
SHARE

রবিবার, ০৬ জুন, ২০২১, ০৯:২০:৪৯

ফোন বৈধ না অবৈধ যাচাই করবেন যেভাবে

ফোন বৈধ না অবৈধ যাচাই করবেন যেভাবে

আগামী ১ জুলাই থেকে দেশে অবৈধ ও নকল হ্যান্ডসেট বন্ধের প্রক্রিয়া শুরু হবে বলে জানিয়েছে বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশন (বিটিআরসি)। ন্যাশনাল ইকুইপমেন্ট আইডেনটিটি রেজিস্ট্রার (এনইআইআর) তালিকায় যেসব ফোন থাকবে না সেগুলো অবৈধ হিসেবে গণ্য হবে এবং সেগুলো আর চালু করা যাবে না বলে জানিয়েছে বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশনের (বিটিআরসি)।

তবে, বর্তমান যেসব অনিবন্ধিত স্মার্টফোন ব্যবহার হচ্ছে সেগুলো সচল রাখার জন্য আরও কিছুটা সময় পাবেন গ্রাহকেরা। এবং বিদেশ থেকে কেনা বা উপহার হিসেবে পাওয়া মোবাইল সেটগুলোকেও নিবন্ধনের সুযোগ দেয়া হবে।

এমন পরিস্থিতিতে স্বাভাবিকভাবেই ফোন ব্যবহারকারী হিসেবে আপনার মনে প্রশ্ন উঠতেই পারে, আপনি যে ফোনটি ব্যবহার করছন সেটি বৈধ নাকি অবৈধ! সেটা জানার জন্য, আপনার মোবাইল থেকে মেসেজ পাঠিয়ে সহজেই বৈধ বা অবৈধ মোবাইল চিহ্নিত করতে পারবেন।

যেভাবে নিশ্চিত হবেন ফোন বৈধ কি না:

আইএমইআই (IMEI) এর পূর্ণরুপ হলো ইন্টারন্যাশনাল মোবাইল ইকুইপমেন্ট আইডেন্টিটি। প্রত্যেক মোবাইলে ১৫ ডিজিটের আইএমইআই নম্বর থাকে। যা মোবাইল হ্যান্ডসেট তৈরি করার সময় এর মধ্যে প্রোগ্রাম করা থাকে।

প্রত্যেক ফোনের জন্য আলাদা আলাদা আইএমইআই নম্বর থাকে। এই নম্বর মোবাইল হ্যান্ডসেটটির পরিচয় বহন করে।

ফোন কিনতে ইচ্ছুক গ্রাহকরা সংশ্লিষ্ট মোবাইল ফোন থেকে *#০৬# ডায়াল করে ১৫ অঙ্কের আইএমইআই নম্বর জেনে নিতে পারেন।

মোবাইল ফোন বৈধতা পরীক্ষা করতে আইএমইআই নম্বরটি (যেমন: KYD 123456789) ১৬০০২ নম্বরে এসএমএস করতে হবে। ফিরতি মেসেজে গ্রাহক বিটিআরসির তথ্যভাণ্ডারে ওই আইএমইআই নম্বরটি আছে কি না, তা জানতে পারবেন।

বিটিআরসি ২০১৮ সালের জানুয়ারি থেকে বৈধভাবে আমদানি করা মোবাইল সেটগুলোর ইন্টারন্যাশনাল মোবাইল ইকুইপমেন্ট আইডেনটিটি (আইএমইআই) নম্বরের জন্য ইতোমধ্যে একটি ডাটাবেস তৈরি করেছে। এতে, অবৈধ পথে হ্যান্ডসেট আমদানি বন্ধ হবে, যা বছরে প্রায় সরকারের তিন হাজার কোটি টাকার বাড়তি রাজস্ব আয়ও নিশ্চিত করবে। একই সঙ্গে এ সার্ভারের ব্যবহার শুরু হলে মোবাইল হ্যান্ডসেট ছিনতাই এবং চুরিও নিরুৎসাহিত হবে।

আজকের প্রশ্ন

পুরো ঢাকায় ‘অঘোষিত কারফিউ’ চলছে। সরকার জনগণকে জিম্মি করে জনগণকে বাদ দিয়ে বিদেশি অতিথিদের নিয়ে স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী উদযাপনে ব্যস্ত। ফখরুলের এক মন্তব্যের সঙ্গে আপনি কি একমত?